মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C

সরকারী কে.সি. কলেজ

সরকারী কে সি কলেজ ঝিনাইদহ জেলার অন্যতম প্রধান বিদ্যাপীঠ। ঝিনাইদহ জেলা শহরের প্রাণকেন্দ্রে অবস্থিত এ ঐতিহ্যবাহী কলেজটি ১৯৬০ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। তদানীন্তন মহকুমা প্রশাসক জনাব এম খুরশীদ আনোয়ার ও অন্যান্য সরকারী কর্মকর্তা এবং বিদ্যোৎসাহী জনগণের আন্তরিক প্রচেষ্টা ও অর্থানুকুল্যে গড়ে ওঠে ঝিনাইদহবাসীর বহুদিনের কাংক্ষিত স্বপ্ন উচ্চশিক্ষার প্রতিষ্ঠান কেশবচন্দ্র কলেজ।

১৯৫৯ সালের ২০ নভেম্বর, ঝিনাইদহ শহরের প্রখ্যাত মটরগাড়ী ব্যবসায়ী বাবু কেশব চন্দ্র পাল মহাশয়ের দানপত্রে স্বাক্ষরদানের মাধ্যমে শুরু হয় তৎকালীন মহকুমার একমাত্র কলেজের কার্যক্রম এবং এ দানের মাধ্যমে তিনি চিরস্মরনীয় হয়ে রইলেন ঝিনাইদহবাসীর অন্তরে। একটি দ্বিতল ভবনসহ ০.৫৯ শতক জমির উল্লেখ আছে এ দানপত্রে। কলেজের প্রাসাদোপম মূল ভবনটি তিনিই দান করেন এবং তারই নামানুসারে কলেজের নামকরণ হয় কেশব চন্দ্র কলেজ। ১৯৬০ সালে জনাব শেখ হাবিবুর রহমান বাদ পুকুরিয়া মৌজায় ৩.৩০ একর জমি কলেজের জন্য দান করেন। বর্তমানে কলেজের মোট জমির পরিমান ৯.০২ একর। ১৯৬০ সালে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় আই এ ও আই কম এবং ১৯৬৪ সালে যশোর মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড এইচ এস সি শ্রেণীর অ্যাফিলিয়েশন প্রদান করে। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক ১৯৬৩ সালে বি এ ও বি কম এবং ১৯৬৭ সালে বি এস সির অ্যাফিলিয়েশন প্রদান করায় পূর্নাংগ ডিগ্রী কলেজে পরিণত হয়। ১৯৮০ সালের ১ মার্চ কলেজটিকে সরকারীকরণ করা হয়।

 

তথ্য সূত্র: ঝিনাইদহের ইতিহাস, সম্পাদনায়: এম,এম, আল-ফারুক